খেলা

বাজে পারফরম্যান্সের কারনে অবসর নিলেন হাফিজ

52Shares

দীর্ঘ বিরতির পর টেস্ট দলে ফিরেই গত মাসে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে দারুণ এক সেঞ্চুরি করেছিলেন মোহাম্মদ হাফিজ। এরপর সর্বশেষ সাত ইনিংসে মোহাম্মদ হাফিজের ব্যাট থেকে এসেছে মাত্র ৬৬ রান।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে চলমান আবুধাবি টেস্টের দ্বিতীয় দিনে মঙ্গলবার দুঃসময় দীর্ঘায়িত করে শূন্যরানে আউট হতেই মনের গহিনে শেষের ডাক শুনে ফেলেন পাকিস্তানি ওপেনার।

দল থেকে ফের বাদ পড়ার আগেই টেস্ট ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়ে দেয়ার কঠিন সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেন ৩৮ বছর বয়সী হাফিজ।

মঙ্গলবার দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষে সংবাদ সম্মেলনে জানিয়ে দিলেন, এটাই তার শেষ টেস্ট। ৫৫ টেস্টে এখন পর্যন্ত ১০ সেঞ্চুরি ও ১২ ফিফটিতে ৩৬৪৪ রান করা হাফিজের টেস্ট অভিষেক হয়েছিল ২০০৩ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে।

হাফিজের বিদায়ী টেস্টে মঙ্গলবার সাদা পোশাকে দ্রুততম ২০০ উইকেটের রেকর্ড গড়ার অপেক্ষা আরও বেড়েছে ইয়াসির শাহর। সোমবার নিজের ৩৩তম টেস্টের প্রথমদিনে তিন উইকেট নিয়ে রেকর্ডের হাতছোঁয়া দূরত্বে পৌঁছে গিয়েছিলেন পাকিস্তানের এই লেগ-স্পিনার।

২০০ ছুঁতে দরকার আর মাত্র দুই উইকেট। সাত উইকেটে ২২৯ রানে দ্বিতীয় দিন শুরু করা নিউজিল্যান্ডের প্রথম ইনিংস থামে ২৭৪ রানে। ইয়াসিরের অপেক্ষা বাড়িয়ে মঙ্গলবার বাকি তিন উইকেটই নিজের ঝুলিতে ভরেন অফ-স্পিনার বিলাল আসিফ। ৬৫ রানে পাঁচ উইকেট নিয়ে প্রথম ইনিংসে তিনিই পাকিস্তানের সফলতম বোলার। নিউজিল্যান্ড অলআউট হলেও ২৫০ বলে ৭৭ রানের আদর্শ এক টেস্ট ইনিংস খেলে অপরাজিত ছিলেন বিজে ওয়াটলিং।

জবাবে দ্বিতীয় দিন শেষে পাকিস্তানের সংগ্রহ তিন উইকেটে ১৩৯ রান। আজহার আলী ৬২ ও আসাদ শফিক ২৬ রানে অপরাজিত আছেন। সাত উইকেট হাতে রেখে এখনও ১৩৫ রানে পিছিয়ে পাকিস্তান। ট্রেন্ট বোল্টের জোড়া আঘাতে ১৭ রানে দুই উইকেট হারানোর পর হারিস সোহেল (৩৪) ও শফিককে নিয়ে দলকে কক্ষপথে ফেরান আজহার।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

নিউজিল্যান্ড ১ম ইনিংস: ২৭৪ (রাভাল ৪৫, কেন উইলিয়ামসন ৮৯, ওয়াটলিং ৭৭*। ইয়াসির শাহ ৩/৭৫, বিলাল আসিফ ৫/৬৫)।

পাকিস্তান ১ম ইনিংস: ১৩৯/৩ (আজহার আলী ৬২*, হারিস সোহেল ৩৪, আসাদ শফিক ২৬*। বোল্ট ২/৩৯)।

52Shares